;

চট্টগ্রাম

পার্বত্য বিভাগ ও সমুদ্র বন্দর

চট্টগ্রামের ইতিহাস

সীতাকুন্ড এলাকায় পাওয়া প্রস্তরীভূত অস্ত্র এবং বিভিন্ন মানবসৃষ্ট প্রস্তর খন্ড থেকে ধারণা করা হয় যে, এ অঞ্চলে নব্যপ্রস্তর যুগে অস্ট্রো-এশিয়াটিক জনগোষ্ঠীরবসবাস ছিল। তবে, অচিরে মঙ্গোলদের দ্বারা তারা বিতাড়িত হয় (হাজার বছরের চট্টগ্রাম, পৃ‌২৩)। লিখিত ইতিহাসে সম্ভবত প্রথম উল্লেখ গ্রিক ভৌগোলিক প্লিনির লিখিত পেরিপ্লাস। সেখানে ক্রিস নামে যে স্থানের বর্ণনা রয়েছে ঐতিহাসিক নলিনীকান্ত ভট্টশালীর মতে সেটি বর্তমানের সন্দীপ। ঐতিহাসিক ল্যাসেনের ধারণা…

বিস্তারিত

নন্দীরহাটের সত্য সাহার জমিদার বাড়ি, চট্টগ্রাম

নন্দীরহাটের সত্য সাহার জমিদার বাড়ি, চট্টগ্রাম

মন্দিরের গ্রাম হিসেবে খ্যাত নন্দীরহাট। চট্টগ্রামের খাগড়াছড়ি-রাঙ্গামাটি মহাসড়কে হাটহাজারি থানার অন্তর্গত ঐতিহাসিক ও পুরাকীর্তির প্রাচীন নন্দীরহাট গ্রাম। ব্রিটিশ আমলে এই গ্রামে বেশ কয়েকজন জমিদার বাস করতেন। জমিদারদের রাজবাড়ির পাশাপাশি ছিলো তাদের তৈরি নানা মন্দির। সেই কারণেই এই গ্রামকে মন্দিরের গ্রাম

প্রজাপতি পার্ক, পতেঙ্গা

প্রজাপতি পার্ক, পতেঙ্গা

বন্দরনগরী চট্টগ্রাম মানেই আকর্ষণীয় একটি পর্যটনস্থলের নাম। অসংখ্য দর্শনীয় স্থানে ভরপুর এই জেলাটি তাই ভ্রমণ পিপাসুদের কাছে এক আকর্ষণের নাম। আর চট্টগ্রামের পতেঙ্গা হল সমুদ্র বিলাসীদের পছন্দের জায়গা। পতেঙ্গা সমুদ্র সৈকত পাড়ের ঢেউ আর ঝাউয়ের সারির মায়ার টানে প্রতিদিনই হাজারো

বাংলাদেশ রেলওয়ে জাদুঘর, চট্টগ্রাম

বাংলাদেশ রেলওয়ে জাদুঘর, চট্টগ্রাম

বন্দরনগরী চট্টগ্রাম মানেই পাহাড়, সমুদ্র আর অপূর্ব প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের অপার মেলবন্ধন। আকর্ষণীয় পর্যটন নিদর্শনে ভরপুর পাহাড় কন্যা চট্টগ্রাম। পাহাড়, সাগর, আঁকাবাঁকা পাহাড়ি সড়ক,বন্যপ্রাণীর অভয়ারণ্য, ঝাউবন, ঝুলন্ত সেতু, সমুদ্রবন্দর- কি নেই এখানে। প্রকৃতি প্রেমীদের জন্য সবুজ – শ্যামল নান্দনিক সৌন্দর্য যেমন

রাঙ্গুনিয়ার কোদালা চা বাগান, চট্টগ্রাম

রাঙ্গুনিয়ার কোদালা চা বাগান, চট্টগ্রাম

দিগন্ত জোড়া সবুজ বন-বনানীর সৌন্দর্যে নিজেকে চাঙ্গা করতে প্রকৃতির সান্নিধ্য খোঁজেন সকল প্রকৃতি প্রেমী। পাহাড় হোক কিংবা অরণ্য ভ্রমণপ্রেমীরা ও প্রকৃতিপ্রেমীরা সুযোগ পেলেই ছুটেন তাতে। সবুজের বুকে খুঁজে পান প্রশান্তির ছোঁয়া। কর্মব্যস্ত জীবন থেকে যারা একটু অবসর নিয়ে প্রকৃতির সাথে

বন্দর নগরীর অন্যতম আকর্ষণ : চট্টগ্রাম চিড়িয়াখানা

বন্দর নগরীর অন্যতম আকর্ষণ : চট্টগ্রাম চিড়িয়াখানা

বন্দরনগরী চট্টগ্রাম মানেই পাহাড়, সমুদ্র আর অপূর্ব প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের অপার মেলবন্ধন। আকর্ষণীয় পর্যটন নিদর্শনে ভরপুর পাহাড় কন্যা চট্টগ্রাম। পাহাড়, সাগর, আঁকাবাঁকা পাহাড়ি সড়ক, বন্যপ্রাণীর অভয়ারণ্য, ঝাউবন, ঝুলন্ত সেতু, সমুদ্রবন্দর – কি নেই এখানে। আর তাই ভ্রমনপিপাসুদের পছন্দের জায়গার তালিকায় পার্বত্য

আন্দরকিল্লা শাহী জামে মসজিদ, চট্টগ্রাম

আন্দরকিল্লা শাহী জামে মসজিদ, চট্টগ্রাম

ঐতিহাসিক বিভিন্ন স্থাপনা আমাদের অতীত ইতিহাস ও ঐতিহ্যকে ধারণ করে এখনো স্ব-মহিমায় নিজের অস্তিত্ব জানান দেয়। প্রতিটি জেলার এসব ঐতিহাসিক স্থাপনা যেমন আমাদের দেশের সৌন্দর্যের অন্যতম অনুষঙ্গ তেমনি পর্যটকদেরও আকর্ষণের কেন্দ্রবিন্দু। এসকল স্থাপনার মধ্যে একটা বড় অংশ জুড়ে আছে দেশের

পাথরঘাটায় ৪০০ বছর ধরে চলছে বড়দিনের উৎ​সব!

পাথরঘাটায় ৪০০ বছর ধরে চলছে বড়দিনের উৎ​সব!

একসময় বড়দিন উপলক্ষে জমজমাট বল নাচের আসর বসত। ‘ক্রিসমাস ড্যান্স’ ও ‘নিউ ইয়ার ড্যান্সের’ আয়োজন চলত অনেক দিন ধরে। এখন নাচের আসর হলেও সেই বল নাচ হারিয়ে গেছে। তবে বড়দিনের আমেজ আগের মতোই আছে। কথা হচ্ছিল চট্টগ্রামের পাথরঘাটার পুরোনো বাসিন্দা

কমনওয়েলথ ওয়ার সিমেট্রি, চট্টগ্রাম

কমনওয়েলথ ওয়ার সিমেট্রি, চট্টগ্রাম

পার্বত্য জেলা চট্টগ্রামের সৌন্দর্যের যেন কোনো শেষ নেই। আকর্ষণীয় পর্যটন নিদর্শনে ভরপুর পাহাড় কন্যা চট্টগ্রাম। পাহাড়, সাগর, আঁকাবাঁকা পাহাড়ি সড়ক,বন্যপ্রাণীর অভয়ারণ্য, ঝাউবন, ঝুলন্ত সেতু, সমুদ্রবন্দর- কি নেই এখানে। অসংখ্য দেখার মত জায়গায় ভরপুর চমৎকার এই জেলাটি।পাহাড়, হ্রদ, সবুজ বনানী ঘেরা

বাঁশবাড়িয়া সমুদ্র সৈকত, চট্টগ্রাম

বাঁশবাড়িয়া সমুদ্র সৈকত, চট্টগ্রাম

ঘড়ির কাঁটাতে ঠিক তখন দুপুর একটা বাজি বাজি বারে আবার বৃহস্পতিবার ব্যাংকে কাজের খুব চাপ। এর মধ্যে মোবাইল ফোন বেজেই চলছে। কাজের যন্ত্রণায় ফোন ধরছিলাম না। অনেক সময় ধরে বাজছে শুনে ভাবলাম জরুরী কোন ফোন হয়তো। ওপাশ হতে ভেসে এলো সজল মামা’র কণ্ঠ ‘

বাইকে সাজেক, রাঙ্গামাটি, বান্দরবান, কক্সবাজারে দুজনে!

বাইকে সাজেক, রাঙ্গামাটি, বান্দরবান, কক্সবাজারে দুজনে!

আমাদের মোট ৭ দিনের (অক্টোবর ০৬ – অক্টোবর ১২, ২০১৮) এই ট্যুরের রুট প্ল্যানটি ছিলো এমন ঢাকা – খাগড়াছড়ি – সাজেক – কাপ্তাই – রাঙ্গামাটি – বান্দরবান – কক্সবাজার – ঢাকা। এই ট্যুরের প্রধান বিশেষত্ব হল, সম্পূর্ণ ট্যুরটি ছিল মোটরসাইকেলে,